নোয়াখালীতে গরুচোর চক্রের দুই সদস্য আটক


নজরুল ইসলাম, স্টাফ রিপোর্টার
প্রকাশের সময় : জুন ১৬, ২০২৪ । ১১:৩৫ অপরাহ্ণ
নোয়াখালীতে গরুচোর চক্রের দুই সদস্য আটক

নোয়াখালীর চাটখিলে আন্তঃজেলা গরুচোর চক্রের দুই সদস্যকে আটক করা হয়েছে। চাটখিল থানা পুলিশের বিশেষ অভিযানে রোববার (১৬ জুন) গরু চুরি ঘটনায় জড়িত এই দুজনকে আটক করা হয়।

আটককৃত হলো উপজেলার ফতেহপুর গ্রামের মনির উদ্দিন মিয়াজী বাড়ির নজরুল ইসলাম মনুর ছেলে মোঃ ফরিদ হোসেন (২২) ও একই গ্রামের মজিদ বেপারী বাড়ির ইউসুফের ছেলে রাজু (২৪)।

রোববার দুপুরে আসামীদেরকে আদালতে প্রেরণ করা হয়। পৌরসভার ১নম্বর ওয়ার্ডের ফতেহপুর গ্রামের মজিদ ব্যাপারী বাড়ির খামারী জসিম উদ্দিনের মামলার ভিত্তিতে রোববার ভোরে থানা পুলিশ বিশেষ অভিযানে চোর চক্রের এই দুই সদস্যকে আটক করে পুলিশ।

খামারী জসিম উদ্দীন বলেন, ‘আমি একজন প্রান্তিক খামারী। গত ৩ জুন রাতে আমার বসতঘরে চেতনা নাশক স্প্রে করে চোরচক্র। এরপর খামারের শিকল এবং তালা কেটে খামার হতে ৫টি গরু চুরি করে নিয়ে যায়। গরুগুলোর বাজার মূল্য আট লক্ষ টাকারও বেশি। গরু হারিয়ে এখন আমি পথে বসে গেছি।’

এর আগে চুরির ঘটনায় খামারী জসীমউদ্দীন অজ্ঞাতনামা আসামী করে একটি অভিযোগ দায়ের করেছিলেন। চোর চক্রকে ধরতে চাটখিল থানা পুলিশ একাধিক অভিযান পরিচালনা করে। অবশেষে রোববার (১৬ জুন) ভোরে এদের দুই সদস্যকে আটক করা হয়। গরুগুলো চুরি করে তারা কোরবানীর পশুর হাটে বিক্রি করে ফেলেছে বলেই প্রাথমিকভাবে পুলিশকে জানিয়েছেন।

মামলা তদন্তকারী কর্মকর্তা চাটখিল থানা পুলিশের উপ-পরিদর্শক আবুল খায়ের বলেন, ‘আমরা একাধিক বার অভিযান পরিচালনা করে গত রাত চোরচক্রের এই দুই সদস্যকে আটক করেছি। এই দুইজন চোর এই বিষয়ে বিজ্ঞ আদালতে স্বীকারোক্তি মূলক জবানবন্দী দিতে রাজি হয়েছে।’

চাটখিল থানার অফিসার ইনচার্জ মুহাম্মদ ইমদাদুল হক ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন। তিনি বলেন, গরু চুরির মামলায় তাদেরকে আটক করা হয়েছে। আমরা আটককৃত দুইজনকে আদালতে সোপর্দ করেছি।

পুরোনো সংখ্যা

শনি রবি সোম মঙ্গল বু বৃহ শুক্র
১০১১১৩
১৫১৬১৯২০২১
২২২৩২৪২৫২৬২৭
৩০