সর্বশেষ :

চ্যাম্পিয়ন্স লিগ: ব্রাগাকে পরাজিত করে নক আউট পর্বে নাপোলি


অনলাইন ডেস্ক
প্রকাশের সময় : ডিসেম্বর ১৩, ২০২৩ । ৬:০৮ অপরাহ্ণ
চ্যাম্পিয়ন্স লিগ: ব্রাগাকে পরাজিত করে নক আউট পর্বে নাপোলি

পর্তুগীজ ক্লাব স্পোর্টিং ব্রাগাকে ২-০ গোলে পরাজিত করে চ্যাম্পিয়ন্স লিগের নক আউট পর্ব নিশ্চিত করেছে নাপোলি। এর মাধ্যমে ঘরের মাঠে দুই মাসেরও বেশী সময় পর কোন ম্যাচে জয়ের দেখা পেল ইতালিয়ান চ্যাম্পিয়নরা।

গ্রুপ-সি’র শীর্ষে থাকা রিয়াল মাদ্রিদের পর দ্বিতীয় দল হিসেবে সিরি-এ চ্যাম্পিয়নরা পরের রাউন্ডের টিকেট পেয়েছে। কাল স্তাদিও দিয়েগো আরমান্ডো ম্যারাডোনা স্টেডিয়ামে সারডার সাটিচের আত্মঘাতি গোলের পর ভিক্টর ওশিমেনের গোলে নাপোলির জয় নিশ্চিত হয়। অক্টোবরের পরে এটাই ওশিমেনের প্রথম গোল। দুটি গোলই এসেছে প্রথমার্ধে।

এক গোলের ব্যবধানে জিতলেও ওয়াল্টার মাজ্জারির দলের পরের রাউন্ড নিশ্চিত হতো। টানা ছয় ম্যাচে ঘরের মাঠে জয়বিহীন থাকার পর শেষ পর্যন্ত জয় নিশ্চিত হলো ইতালিয়ান জায়ান্টদের।

সেপ্টেম্বরের শেষ দিকে  সর্বশেষ তারা উদিনেসকে এই মাঠে পরাজিত করেছিল। ছয় ম্যাচে ১০ পয়েন্ট নিয়ে নেপলস গ্রুপ পর্ব শেষ করেছে। ছয় পয়েন্ট পিছিয়ে তৃতীয় স্থানে থাকা ব্রাগাকে ইউরোপা লিগ নিয়ে সন্তুষ্ট থাকতে হলো।

নাপোলি অধিনায়ক গিওভান্নি ডি লোরেঞ্জো স্কাই স্পোর্টসকে বলেছেন, ‘গ্রুপ পর্বের গন্ডি থেকে বেরিয়ে আসার আমাদের লক্ষ্য ছিল। যদিও কাজটা মোটেই সহজ ছিলনা। আমি মনে করি নক আউট পর্বে যাওয়া আমাদের প্রাপ্য ছিল। আমাদের এখনো অনেক কাজ বাকি আছে। আমরা ভাল খেলেছি, ফলাফলের দিকে তাকালে তার প্রমান পাওয়া যাবে।’

রুডি গার্সিয়ার বরখাস্তের পর নাপোলির দায়িত্ব নেন মাজ্জারি। তার অধিনে প্রথম চার ম্যাচের তিনটিতেই পরাজিত হয়েছিল নাপোলি। কাল ব্রাগার বিপক্ষে জয়ের পর স্বস্তি প্রকাশ করেছেন মাজ্জারি, ‘আমরা সত্যিই দারুন খেলেছি। এখন আমাদের আবারো নতুন করে শুরু করতে হবে। সব মিলিয়ে আমি আশাবাদী।’

সব ধরনের প্রতিযোগিতায় টানা পাঁচ ম্যাচে অপরাজিত থেকে কাল মাঠে নেমেছিল ব্রাগা। পর্তুগাল লিগের শীর্ষ দল স্পোর্টিং লিসবনের তুলনায় দুই পয়েন্ট পিছিয়ে রয়েছে ব্রাগা। নাপোলিকে ছাড়িয়ে যেতে হলে ব্রাগাকে অন্তত দুই গোলের ব্যবধানে জিততে হতো।

শুরুতেই দুই মিনিটের মধ্যে ব্রুমা গোলের দারুন সুযোগ নষ্ট করেন। ৯ মিনিটে মাত্তেও পলিটানোর লো ক্রস থেকে সাটিচের আত্মঘাতি গোলে এগিয়ে যায় নাপোলি।

ব্রাগার গোলরক্ষক মাথিয়াস তার সর্বোচ্চ চেষ্টা করেছেন, কিন্তু বল তার আগেই লাইন অতিক্রম করে। রিকার্ডো হোর্তার শট দারুন দক্ষতায় রক্ষা করেন নাপোলি গোলরক্ষক এ্যালেক্স মেরেত।

৩৩ মিনিটে সদ্য আফ্রিকান বর্ষসেরা খেলোয়াড়ের পুরষ্কার পাওয়া ওশিমেন নাপোলির জয় নিশ্চিত করেন। চ্যাম্পিয়ন্স লিগে এবারের মৌসুমে এটি নাইজেরিয়ান স্ট্রাইকারের প্রথম গোল।

 

সূত্র : বাসস

পুরোনো সংখ্যা

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩১৪১৫
১৬১৭১৮১৯২০২১২২
২৩২৪২৫২৬২৭২৮২৯
৩০৩১