যশোরে “স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মাণে আমাদের করণীয়” শীর্ষক মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত


ওয়াজেদ আলী, ফটো সাংবাদিক যশোর
প্রকাশের সময় : মার্চ ২৪, ২০২৩ । ১২:০৮ পূর্বাহ্ণ
যশোরে “স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মাণে আমাদের করণীয়” শীর্ষক মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত

“যশোরে স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মাণে আমাদের করণীয়” শীর্ষক এক মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়েছে। বৃহস্পতিবার (২৩ মার্চ) সকালে জেলা প্রশাসন ও জেলা তথ্য অফিসের আয়োজনে যশোর জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে এ মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়।

জেলা প্রশাসক তমিজুল ইসলাম খানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (উন্নয়ন ও মানবসম্পদ ব্যবস্থাপনা) মাসুদ উল আলম। অনুষ্ঠানে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপনের পর স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মাণে যশোর জেলায় কি ধরণের পরিকল্পনা বাস্তবায়ন করা যায় এ বিষয়ে কৃষি, শিক্ষা, ঐতিহ্য, শিল্পসহ বিভিন্ন খাতে নতুন নতুন আইডিয়া (পরিকল্পনা) জমা দেওয়ার জন্যে আহ্বান জানানো হয়।

অনুষ্ঠানের সভাপতির বক্তব্যে জেলা প্রশাসক বলেন, স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মাণে দেশের ৬৪ জেলা থেকে সরকারের পক্ষ থেকে নতুন আইডিয়া চাওয়া হয়েছে। যে জেলা ভালো আইডিয়া দিবে সেই জেলাকে পুরস্কৃতও করা হবে। ডিজিটাল বাংলাদেশের প্রথম জেলা যশোর। স্মার্ট বাংলাদেশেরও প্রথম জেলা হবে যশোর এমন আশাবাদ থেকে একটি আইডিয়া ব্যাংক স্থাপন করা হবে। সেখানে খাতভিত্তিক আইডিয়া জমা দেয়ার জন্যে আহ্বান জানানো হচ্ছে। আইডিয়া গৃহিত হলে বাস্তবায়নের জন্যে সরকার এক কোটি টাকা দিবে।

মতবিনিময় সভায় আরও বক্তব্যে রাখেন, স্থানীয় সরকার যশোরের উপপরিচালক (উপসচিব) হুসাইন শওকত, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ডিএসবি) ফিরোজ কবির, গণপূর্তের নির্বাহী প্রকৌশলী আরিফুল ইসলাম, মুক্তিযোদ্ধা আফজাল হোসেন, সিনিয়র তথ্য কর্মকর্তা রেজাউল করিম, জেলা শিক্ষা কর্মকর্তা একেএম গোলাম আযম, জেলা প্রতিবন্ধী বিষয়ক কর্মকর্তা মুনা আফরিন, সরকারি মহিলা কলেজের সহযোগী অধ্যাপক মোফাজ্জেল হোসেন, সরকারি মাইকেল মধুসূদন কলেজের সহকারী অধ্যাপক শাহদাৎ হোসেন, সাংবাদিক সাজেদ রহমান, এইচ আর তুহিন, তৌহিদ মনি, মনিরুল ইসলাম, ইন্দ্রজিৎ রায়, প্রণব দাস, এসএম আরিফ প্রমুখ।

এছাড়া আরও উপস্থিত ছিলেন, জেলা প্রশাসনের পদস্থ কর্মকর্তা, জেলার দপ্তরসমূহের প্রধানগণ এবং প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকগণ।

পুরোনো সংখ্যা

সতর্কবাণী: এই সাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার কঠোর ভাবে নিষিদ্ধ এবং কপিরাইট আইনে দণ্ডনীয় অপরাধ।